Categories
নিউজ

আপনার কাছে এই ১০০ টাকার নোট থাকলে পেতে পারেন ৬ লাখ টাকা, রইল বিস্তারিত

বাড়ি বসেই লাখপতি! শুনে অবাক হচ্ছেন তো! অবাক হওয়ার মতই ব্যাপার। ইন্টারনেট অনেক কিছুই খুব সহজ করে দিয়েছে। তার মধ্যে একটা হল কেনা-বেচা। এখন অনলাইনে পুরোনো নোট ও কয়েন বিক্রি করে ঘরে বসেই হয়ে যেতে পারেন লাখপতি।

যদি আপনার পুরোনো দিনের নোট ও কয়েন জমিয়ে রাখার নেশা থাকে তাহলে আর চিন্তা নেই। ঘরে বসেই আপনি হয়ে যেতে পারেন কয়েক লাখ টাকার মালিক। আপনার কাছে কি এই ১০০ টাকার নোট আছে? আর সেই নোটের নম্বর ৭৮৬ তাহলে সেই ১০০ টাকার নোটটি আপনি বিক্রি করতে পারবেন সর্বোচ্চ ৬ লক্ষ টাকায়। চমকে গেলেন? চমকে ওঠার মত খবরই বটে। এখন বাড়ি বসেই বিভিন্ন অনলাইন সাইটের মাধ্যমে আপনি পুরোনো সেই নোট ও কয়েন বিক্রি করতে পারবেন।

১. ebay:
প্রথমে আপনি www.ebay.com ওপেন করে নিন। হোম পেজ ওপেন হলে আপনি নিজের নাম নথিভুক্ত করতে পারেন। আপনি একজন ‘বিক্রেতা’ হিসাবে নিজের নাম নথিভুক্ত করবেন। আপনার মেমোর পরিষ্কার ও সুন্দর ফটো তুলে সাইটে আপলোড করে দিন। আপলোড করলে বিভিন্ন ক্রেতারা আপনার বিজ্ঞাপনটি দেখতে পাবেন। বিজ্ঞাপন দেখে পুরোনো টাকা কিনতে চান এমন ক্রেতারা আপনার সাথে যোগাযোগ করবেন। এরপর দাম সম্পর্কে আলোচনা করে নোট বিক্রি করে দিতে পারবেন।

২) Quikr:
প্রথমে www.quikr.com গিয়ে আপনার নাম নতিভুক্ত করুন একজন বিক্রেতা হিসাবে। তারপরে আপনি যা বিক্রয় করতে চান তার ফটো আপলোড করুন। বিজ্ঞাপন দেখে সাইট ব্যবহারকারী ও পুরোনো নোট কিনতে চান এমন ব্যক্তি আপনার সাথে সরাসরি যোগাযোগ করবেন। তারপরে আপনারা মূল্য নিয়ে আলোচনা করুন ও বিক্রয় করে দিন।

৩) Coin Bazar:
এখানেও সম্পূর্ণ একই পদ্ধতিতে আপনাকে নাম লেখাতে হবে। যা বিক্রয় করতে চান তার সুন্দর ফটো আপলোড করতে হবে। ক্রেতারা আপনাকে সরাসরি যোগাযোগ করবে। তারপরে দাম ঠিক করে নিন ও বিক্রয় করুন।

পুরোনো নোট ও কয়েন বিক্রি করার সময় মনে রাখবেন অনলাইনের মাধ্যমে সম্পূর্ণ নিজের উপরে ঝুঁকিতে আপনি আপনার জিনিস বিক্রয় করবেন। এরজন্য অন্য কোন কর্তৃপক্ষকে আপনি দায়ী করতে পারেন না।বাড়ি বসে পুরোনো নোট বা কয়েন গুলি বিক্রি করার এ এক সুবর্ণ সুযোগ। তাই আপনার জমানো পুরোনো নোট ও কয়েন অনলাইনে বিক্রয় করে সহজেই লাখ টাকার মালিক হয়ে উঠুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.