Categories
লাইফ স্টাইল

এইভাবে পটল পোস্ত রান্না করলে স্বাদ হবে অসাধারণ, হাত চাটবে আট থেকে আশি, শিখে নিন রেসিপি

মাছে ভাত প্রিয় বাঙালির মধ্যে অনেকেই পোস্ত দিয়ে তৈরী যেকোনো রেসিপি বেশ পছন্দ করেন। এর মধ্যে আলুর সাথে পোস্তর যুগলবন্দী সব থেকে প্রিয় বাঙালির। তবে আজকের রেসিপিতে দেখে নেবো আলু ছাড়াও পটলের সাথে কিভাবে পোস্ত দিয়ে অসাধারণ এক সুস্বাদু পদ কিভাবে বানানো যায়। নিরামিষাশীরা ছাড়াও যাদের মাছ মাংস ছাড়া খাওয়া হয়না তাঁরাও হাত চেটে খাবেন এই পদটি ।

উপকরণ :
১.পটল
২.পেঁয়াজ
৩.টমেটো
৪.নুন
৫.চিনি
৬.হলুদ গুঁড়ো
৭.রসুন কুচি
৮.আদা বাটা
৯.লঙ্কার গুঁড়ো
১০.জিরে গুঁড়ো
১১.ধনে গুঁড়ো
১২.কাঁচালঙ্কা
১৩.পোস্ত বাটা
১৪.শুকনোলঙ্কা
১৫.সাদা তেল

প্রণালী :
রান্না শুরুতে ৪টা মাঝারি সাইজের আলুকে লম্বা করে কেটে নিতে হবে। এই রান্নার জন্য নেওয়া হয়েছে ২৫০ গ্রাম পটল। পটলের খোসা ছাড়িয়ে লম্বা লম্বা করে কেটে নিতে হবে।

এর পরে ২টা মাঝারি আকারের পেয়াঁজ এবং ২টা টমেটোকেও একইভাবে কেটে নিয়ে রাখতে হবে। কড়াই গরম করে এর মধ্যে দিয়ে দিতে হবে ১ টেবিল চামচ সাদা তেল। এই রান্নাতে সাদা তেলের পরবর্তের সর্ষের তেলও ব্যবহার করা যাবে। তেল গরম হয়ে গেলে ১/২ টেবিল চামচ নুন এবং ১/৪ চামচ হলুদ তেলের মধ্যে দিয়ে অল্প একটু নাড়াচাড়া করে নিতে হবে।

পটলগুলিকে তেলের মধ্যে দিয়ে হালকা করে ভেজে তুলে নিতে হবে। পটল ভেজে নেওয়ার পরে কড়াইতে আবার ১ টেবিল চামচ তেল দিয়ে দিতে হবে। কেটে রাখা আলুগুলিকে তেলের মধ্যে দিয়ে ভেজে তুলে নিতে হবে। এর পরে তেলের মধ্যে ফোড়নের জন্য দিয়ে দিতে হবে ১/২ চা চামচ কাঁচালঙ্কা, ১টা শুকনো লঙ্কা এবং ২ কোয়া রসুন। ফোড়ন ভালো করে তেলের মধ্যে নাড়াচাড়া করে নিয়ে পেয়াঁজ কুচি দিয়ে নরম করে ভাজতে হবে। পেয়াঁজ ভালো করে ভাজা হয়ে গেলে এর মধ্যে দিয়ে দিতে হবে কেটে রাখা টমেটো, ১/২ নুন , ১ চা চামচ কাশ্মীরি লংকার গুঁড়ো ,এবং ১/২ চামচ হলুদ গুঁড়ো। সব মশলা ভালো করে কষাতে হবে।

অন্য একটি মিক্সিং জারে ২ টেবিল চামচ পোস্ত , ৩টা কাঁচালঙ্কা এবং জল দিয়ে ভালো করে একটা মিশ্রণ তৈরী করে নিতে হবে। বেটে রাখা পোস্ত কড়াইতে দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিতে হবে। পোস্ত ভালো করে কষানোর পরে ভেজে রাখা পটল এবং আলু দিয়ে সমগ্র উপকরণগুলিকে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে।

এরপরে একটু জল , স্বাদমতো নুন এবং ৩টা কাঁচালঙ্কা দিয়ে কড়াইটিকে ঢেকে ৫ মিনিট পর্যন্ত রান্না করতে হবে। ৫ মিনিট পরে ঢাকনা খুলে একটু নাড়াচাড়া করে নিলেই তৈরী হয়ে যাবে সুস্বাদু পটল পোস্ত। ভাতের সঙ্গে একবারে জমে যাবে এই রেসিপিটি।