Categories
বিনোদন

অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে শ্যুটিংয়ের সময় বেবি বাম্প লুকাতে ব্যর্থ, সমালোচনার শিকার অভিনেত্রী হেমা মালিনী

বর্ষীয়ান জনপ্রিয় অভিনেত্রী হেমা মালিনীকে (Hema Malini) নিয়ে চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে আসতেই শোরগোল পরে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ার অন্দরে। এই খবরে বেশ অবাক হয়েছেন অভিনেত্রীর অনুরাগীরাও। বেশ কিছু হিট হিন্দি ছবিতে নায়িকার চরিত্রে অভিনয় করে বিখ্যাত হলেও তিনি তাঁর অভিনয় জীবন শুরু করেছিলেন তামিল সিনেমা ‘ইধু সাথিয়াম’ (Idhu Sathiyam) সিনেমার মধ্যে দিয়ে।

১৯৬৮ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ছবি ‘সপ্ন কে সওদাগর’ (Sapno Ka Saudagar) ছিল তাঁর প্রথম হিন্দি সিনেমা। এই ছবিতে তাঁর বিপরীতে ছিলেন অভিনেতা রাজ কাপুর (Raj Kapoor)। নিজের দীর্ঘ সফল অভিনয় জীবনে অনেক নায়কের বিপরীতে অভিনয় করলেও ধর্মেন্দ্রর (Dharmendra) সাথে তাঁর জুটি ৯০ এর দশকে চূড়ান্ত জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। তাঁদের অভিনীত সিনেমাগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল ‘শোলে’ (Sholay) , ‘সীতা ঔর গীতা’ (Seeta Aur Geeta) , ‘রাজা জানি’ (Raja Jani) প্রভৃতি। অভিনয়ের সূত্র ধরেই ধর্মেন্দ্রর সাথে সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন অভিনেত্রী।

বিবাহিত হওয়া সত্ত্বেও হেমাকে বিয়ে করার জন্য সংসার এবং ধর্ম দুটোই ত্যাগ করেছিলেন ধর্মেন্দ্র। ধর্মেন্দ্রর প্রথম স্ত্রী প্রকাশ কৌরের (Prakash Kaur) কোনো আপত্তি ছিল না এই বিয়েতে। ১৯৮০ সালে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন এই জনপ্রিয় জুটি। তাঁদের দুই কন্যা সন্তান বর্তমান। নিজের অভিনয় জীবনে সফল ছবিগুলির মধ্যে অন্যতম ছিল ‘সত্তে পে সত্তা’ (Satte Pe Satta )।

বিগ বি অমিতাভ বচ্চনের (Amitabh Bachchan) নায়িকা ছিলেন এই সিনেমায়। সংবাদসূত্রে জানা যায় এই সিনেমার শুটিংয়ের সময় অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন হেমা। কিন্তু এই অবস্থাতেও তাঁকে কাজ চালিয়ে নিয়ে যেতে হয়েছিল। এমনকি পিছান সম্ভব হয়নি শুটিংয়ের তারিখও। কারণ প্রযোজনা সংস্থার সাথে চুক্তিবদ্ধ ছিলেন তিনি। তার উপরে সেইসময় প্রযুক্তি এতো উন্নত ছিল না। ফলে সিনেমার সময় প্রকাশ্যেই এসেছিল তাঁর বেবিবাম্প। শাল দিয়েও লুকিয়ে রাখতে ব্যর্থ হয়েছিলেন। এই সত্যি ঘটনা সামনে আসতেই সমালোচিত হয়েছিলেন হেমা। তবে অমিতাভ -হেমা অভিনীত সিনেমাটি সুপার হিট হয়েছিল।


জনপ্রিয় অভিনেত্রীর পাশাপাশি তিনি একজন প্রসিদ্ধ নৃত্যশিল্পী। ৭৩ বছরে এসে এখনো অনেকের ‘ড্রিম গার্ল’ তিনি। বির্তক নায়ক নায়িকাদের জীবনের সাথে ওতপ্রোতভাবে যুক্ত। তাঁদের নিয়ে হামেশাই গসিপের অন্ত থাকে না। তবে নিজের অভিনয় দক্ষতার কারণে বলিউডপ্রেমী মানুষদের কাছে যে ভাবমূর্তি বানিয়েছেন হেমা, তাতে এইসব গসিপের পরেও এর কোনো পরিবর্তন ঘটবে না।

Categories
বিনোদন

নতুন জীবনে পা রাখলেন অমিতাভ বচ্চন, শুভেচ্ছায় ভরালেন অনুরাগীরা

বলিউডে নতুন রূপে আত্মপ্রকাশ ঘটতে চলেছে বিগ বি অমিতাভ বচ্চনের (Amitabh Bachchan)। এই খবরে স্বভাবতই খুব খুশি তাঁর অনুরাগীরা।

১৯৬৯ সালে মৃনাল সেনের (Mrinal Sen) কালজয়ী সিনেমা ‘ভুবন সোম’-এ ( Bhuvan Shome) ভয়েস কথক হিসাবে শুরু করেছিলেন তাঁর কর্মজীবন। এর পরে ‘জাঞ্জির’ (Zanjeer) ,শোলে (Sholay), দিওয়ার (Deewaar) প্রভৃতি সিনেমায় অভিনয়ের জন্য পুরস্কার পেয়েছিলেন। ১৯৯১ সালে ফ্লিমফেয়ারের পক্ষ থেকে তাঁকে ;লাইফটাইম এচিভমেন্ট’ (lifetime achievement) পুরস্কারে সম্মানিত করা হয়েছিল। ‘দাদাসাহেব ফালকে’ (Dadasaheb Phalke) পুরস্কারও রয়েছে তাঁর প্রাপ্তির তালিকায় । সিনেমায় অভিনয়ের পাশাপাশি ‘কেবিসি’(KBC)-র মতো রিয়েলিটি শোতে দীর্ঘদিন ধরে সঞ্চালকের ভূমিকা পালন করে এসেছেন। ‘মিস্টার নটবরলাল’ (Mr. Natwarlal) সিনেমার জন্য সেরা অভিনেতার পাশাপাশি সেরা গায়কের জন্যও পেয়েছিলেন ফ্লিমফেয়ার পুরস্কার (Flimfare Award)। এর পরে ১৯৮৭ সালেও কালজয়ী গায়ক কিশোর কুমারের ( Kishore Kumar) সাথে ‘কৌন হারা কৌন জিতা’ (Kaun Jeeta Kaun Haara) সিনেমায় গানও গেয়েছিলেন।

আগামী ২৩ শে সেপ্টেম্বর মুক্তি পেতে চলেছে পরিচালক আর. বাল্কির (R. Balki) নতুন সিনেমা ‘চুপ’ (Chup)। এর আগে বাল্কি পরিচালিত ‘চিনি কম’ (Cheeni Kum), ‘পা’ (Paa) প্রভৃতি সিনেমায় প্রধান ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন বিগ বি। নতুন এই ছবিটি ‘চিনি কম’ এর মতোই সাইকো প্রেমের গল্প বলে জানিয়েছেন পরিচালক। তবে এই সিনেমার প্রধান আকর্ষণ সংগীত রচয়িতা হিসাবে বিগ বির আত্মপ্রকাশ। নিজের অনুভূতি দিয়ে খুব সহজাতভাবে এই সিনেমার জন্য নিজের পিয়ানোয় সুর তুলেছিলেন বর্ষীয়ান এই অভিনেতা। এটি একটি অনন্য পুরস্কার পরিচালকের কাছে। অভিনেতা অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে সুরকার হিসাবে তাঁকে পাওয়াটা বলিউডের পক্ষে নিঃসন্দেহে এক আশীর্বাদ।

ব্যারিটোন কণ্ঠস্বর এবং অভিনয় দক্ষতার কারণে ৮০ এর দশক থেকে বলিউডের ‘শাহেনশাহ’ তিনি। এই বয়সে এসেও সমানভাবে কাজের সঙ্গে জড়িত রয়েছেন। নিত্যনতুনভাবে নিজেকে মেলে ধরছেন অনুরাগীদের কাছে। সুরের জগতে তাঁর এই পর্দাপনে সবাই খুব খুশি। আগামী দিনে তাঁর সৃষ্ট নতুন নতুন সুরের মূর্ছনায় ভেসে যেতে চায় সংগীতপ্রেমী মানুষেরা